Covid Patients Die: নির্মম! কোভিড রোগীকে ঢুকতে বাধা পুলিশের, অ্যাম্বুলেন্সেই মৃত্যু ২ করোনা আক্রান্তের
অ্যাম্বুলেন্সেই মৃত্যু,ছবি এএনআই

বিজয়ওয়াড়া, ১৪ মে: অন্য রাজ্য থেকে তেলাঙ্গানায় কোনও কোভিড (COVID 19) রোগী ঢুকতে দেওয়া হবে না। তেলাঙ্গানা পুলিশ বাধা দেওয়ায় শেষ পর্যন্ত দুই রাজ্যের সীমান্তে মৃত্যু হল কোভিড (COVID Patient) আক্রান্তের। অন্ধ্র-তেলাঙ্গানা সীমান্তে কোভিড আক্রান্তের মৃত্যুর পর সেই ছবি প্রকাশ্যে উঠে আসতেই চাঞ্চল্য ছড়ায়।

শুক্রবার সকালে অন্ধ্রপ্রদেশ থেকে তেলাঙ্গানায় একটি অ্যাম্বুলেন্স প্রবেশ করতে গেলে, আটকে দেয় পুলিশ। কুর্নুল জেলার পুল্লুর টোল প্লাজায় ওই অ্যাম্বুলেন্স আটকানোর পর পুলিশের কাছে কাকুতি মিনতি করতে শুরু করেন কোভিড আক্রান্তের স্ত্রী। তাঁর স্বামীকে ভেন্টিলেটর সাপোর্ট দিয়ে হায়দরাবাদের একটি হাসপাতালে নিয়ে যাচ্ছেন। হায়দরাবাদের একটি বেসরকারি হাসপাতালে তাঁরা বেড বুক করেছেন। দয়া করে যেন তাঁদের তেলাঙ্গানায় প্রবেশ করতে দেওয়া হয় বলে বার বার অনুরোধ জানান রোগীর স্ত্রী।

আরও পড়ুন: Covid 19: হাসপাতালে গেয়ে ওঠেন 'লভ ইউ জিন্দগি', কোভিড কাড়ল সেই তরুণীর প্রাণ

করোনা (Corona) আক্রান্তের অবস্থা দেখে, তাঁর স্ত্রী অনুরোধেও সাড়া দেননি তেলাঙ্গানা পুলিশের কর্মীরা। পুল্লুর টোল প্লাজায় ভোর ৫টা থেকে দাঁড়িয়ে থেকে সেখানেই মৃত্যু হয় ওই মহিলার স্বামীর। এরপর সংবাদমাধ্যমের সামনে কান্নায় ভেঙে পড়েন ওই মহিলা।

শুধু ওই মহিলার স্বামাই নন, অন্ধ্র-তেলাঙ্গানা সীমান্তে অ্যাম্বুলেন্স আটকানোর ফলে মৃত্যু হয় ভীরা রেড্ডি নামে এক তরুণীর বাবারও। ভীরা রেড্ডি তেলাঙ্গার মন্ত্রী কে টি রামারাও কে ট্যুইট করেন তাঁর বাবার অবস্থার কথা জানিয়ে। সেই সঙ্গে অন্ধ্রের হাসপাতাল থেকে দেওয়া বাবার প্রেসক্রিপশনের ছবি তুলেও তা ট্যুইট করেন কিন্তু কোনও কিছুতেই সুরাহা হয়নি বলে খবর। প্রসঙ্গত অন্ধ্র-তেলাঙ্গানা সীমান্ত পরপর অ্যাম্বুলেন্স দাঁড়িয়ে রয়েছে। তাদের কাউকেই তেলাঙ্গানায় প্রবেশ করতে দেওয়া হচ্ছে না বলে অভিযোগ।

এদিকে তেলাঙ্গানা হাইকোর্টের তরফে জানানো হয়েছে, সীমান্ত আটকে দিলেও, কোনও অ্যাম্বুলেন্স (Ambulances) রোখা যাবে না। আদালতের সেই রায়কে অমান্য করেই সীমান্তে আটকে দেওয়া হচ্ছে একের পর এক অ্যাম্বুলেন্স।