কলকাতা বিমানবন্দরে দুর্ঘটনা: 'বদ্ধ' বিমানে দমবন্ধ হয়ে মৃত্যু টেকনিশিয়ানের
Representational Image (Photo Credits: PTI)

কলকাতা, ১০ জুলাই: মঙ্গলবার গভীর রাতে কলকাতার নেতাজি সুভাষচন্দ্র আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে (Netaji Subhash Chandra Bose International Airport) বিমান রক্ষণাবেক্ষণ টেকনিশিয়ানের দুর্ভাগ্যজনক মৃত্যু। বিমান রক্ষণাবেক্ষণের কাজ চলাকালীন হাইড্রোলিক পাওয়ারের যান্ত্রিক গোলযোগে বিমানে আটকে অসুস্থ হয়ে মৃত্যু হল স্পাইস জেট (Spice Jet) বিমান সংস্থার এক টেকনিশিয়ানের। এক এয়ারক্রাফ্টের ল্যান্ডিং গিয়ারে আটকে গিয়ে রোহিত বীরেন্দ্র পান্ডে নামের সেই বিমান কর্মীর মৃত্যু হয়। বিমান রক্ষণাবেক্ষণের কাজ করছিলেন তিনি। যদিও কর্তৃপক্ষ এমন অভিযোগ অস্বীকার করেছে।

বিমানটিতে রক্ষণাবেক্ষণের কাজে গিয়ে হাইড্রোলিক পাওয়ারে যান্ত্রিক ত্রুটি হয়৷ সেখানে বিমানে দমবন্ধ হয়ে যায় রোহিতের, তীব্র ভাবে শ্বাস নেওয়ার চেষ্টা করতে করতেই অসুস্থ পড়েন তিনি৷ শহরের একটি বেসরকারি হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পর রোহিতকে মৃত বলে ঘোষণা করা হয়৷ ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে সিআইএসএফ৷

২০১৫ সালের ডিসেম্বরে কিছুটা একই ধরনের ঘটনায় মুম্বই বিমানবন্দরে এক এয়ার ইন্ডিয়ার এক বিমান টেকনিশিয়ানের মৃত্যু হয়। যেখানে A320 এয়ারক্রাফ্টটি ছাড়ার ঠিক আগে রবী সুব্রহমনিয়াম নামে সেই বিমান কর্মী ল্যান্ডিং গিয়ার পরীক্ষা করতে গিয়ে সেখানে আটকে যান। কিন্তু তিনি পাইলটকে কোনওরকম সিগন্যাল পাঠাতে না পারায়, নির্ধারিত সময়ে পাইলট প্লেন ছাড়তেই দুর্ঘটনায় প্রাণ হারান সেই বিমান কর্মী। আরও পড়ুন-উঁচু জাতে বিয়ে, অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রীকে নিতে এসে শ্বশুরবাড়িতে খুন দলিত যুবক

ইউ টিউবে বিমান কর্মীদের দুর্ঘটনায় দুর্ভাগ্যজনক মৃত্যুর কিছু গা শিউড়ে ওঠা ভিডিও দেখা যায়। যেমন ক বছর আগে এক ভিডিও-তে দেখা যায় ইজিপ্টের এক বিমানকর্মী বিমানের চাকার সামনে কিছু একটা কাজ করছিলেন। কিন্তু আচমকাই প্লেন ছাড়তেই সেই বিমান কর্মীকে পিষে দিয়ে চলে যায়।

বর্ষার মরসুমে দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে গত কয়েক দিনে বেশ কয়েকটি দুর্ঘটনা ঘটেছে। দেশের এক বিমান সংস্থাকে এয়ারলাইনের খারাপ ট্রেনিং মানের জন্য DGCA নোটিশও পাঠায়।