বিজেপির ৫ ট্রিলয়ন ডলারের অর্থনীতি স্বর্গ থেকে নয় পূর্বতন সরকারের প্রয়াসে আসছে, মুখ খুললেন প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি
প্রণব মুখোপাধ্যায়( Getty Images)

দিল্লি, ১৯ জুলাই: আগামী পাঁচ বছরে গড় জাতীয় উৎপাদন ৫ ট্রিলিয়ন ডলারে পৌঁছে দেওয়ার লক্ষ্য নিয়েছে কেন্দ্রের মোদি সরকার। সম্প্রতি সংসদে বাজেট বক্তৃতায় কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমণ বলেছিলেন গত ৭০ বছরে ভারত মাত্র ১.৮ট্রিলিয়ন অর্থনীতিতে পৌঁছেছে। সেই জায়গা থেকে অর্থনীতির উত্তরণ ঘটাতে চাইছে বিজেপি শাসিত সরকার। এদিন রাজধানীতে সমৃদ্ধ ভারত ফাউন্ডেশেনর অনুষ্ঠান মঞ্চে দাঁড়িয়ে বিজেপি ও অর্থমন্ত্রীকে একহাত নিলেন প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখোপাধ্যায় (Pranab Mukherjee)। ৫ ট্রিলিয়ন ডলারের অর্থনীতি কি স্বর্গ থেকে আসছে? দেশের পূর্বতন সব সরকার এর ভিত গড়ে দিয়ে গিয়েছে। আরও পড়ুন-কথা দিয়েছে দ্বিতীয় মোদি সরকার, ১০০ দিনে ছটি প্রকল্পের কাজ শেষ করবে ভারতীয় রেল

এমনিতেই দেশের অর্থনীতির বিষয়ে আলোচনায় তিনি বরাবরই স্পর্শকাতর ও স্পষ্টবাক। তা সে অতীতে সর্বভারতীয় কংগ্রেসের প্লেনারি অধিবেশনে অর্থনৈতিক প্রস্তাবের খসড়া রচনা নিয়ে আলোচনার সময়ে হোক বা পরবর্তী কালে মন্ত্রিসভার বৈঠকে। সবেতেই সঠিক কথাটি বলতে দুবার ভাবেন না প্রণব মুখোপাধ্যায়। সেই প্রসঙ্গ টেনেই প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি বলেন, “অর্থমন্ত্রী বাজেটে কী বলেছেন শুনেছি। ওঁকে মনে রাখতে হবে, ব্রিটিশরা এই অর্থনীতির ভিত গড়ে দিয়ে যায়নি। স্বাধীনতা পরবর্তী সময়কালে সেই ভিত গড়েছে উপর্যুপরি সব সরকার।” এমনকী বক্তৃতায় তিনি এ-ও বলেন, এই যে চন্দ্রযান যাত্রা করবে। এটা কোনও ম্যাজিক নয়। এটা এক দিনে হয়নি। এর জন্যও দীর্ঘদিন সময় লেগেছে ভিত গড়তে।

‘সমৃদ্ধ ভারত ফাউন্ডেশন’ নামে একটি প্রতিষ্ঠান গত কাল দিল্লিতে একটি বক্তৃতা সভার আয়োজন করেছিল। ‘ফার্দারিং ইন্ডিয়াজ প্রমিস’ শীর্ষক ওই বক্তৃতায় প্রণববাবুই ছিলেন প্রধান বক্তা। এ প্রসঙ্গে সেখানে তিনি আরও বলেন, “জওহরলাল নেহরু ও আমাদের পূর্বসুরীরা আইআইটি, ইসরো, আইআইএম, ব্যাঙ্কিং নেটওয়ার্ক ইত্যাদি গড়ে তোলার কারণেই ভারতের অর্থনীতি বহু গুণে বেড়েছিল। এরপরে মনমোহন সিংহ ও নরসিংহ রাও মুক্ত অর্থনীতির পথে দেশকে এগিয়ে নিয়ে যান। তার জেরে ভারতের অর্থনৈতিক সম্ভাবনার আরও বিকাশ হয়। এবং সেই ভিতরে উপর দাঁড়িয়েই অর্থমন্ত্রী (নির্মলা সীতারমণ) দাবি করতে পারেন যে ভারত ৫ ট্রিলিয়ন ডলারের অর্থনীতি হয়ে উঠবে।”