Bank Holidays In May 2022: মে মাসে বেশ কয়েকদিন বন্ধ থাকবে ব্যাঙ্ক, দেখে নিন কোন রাজ্য কবে কাজ হবে না ব্যাঙ্কে
ছবিটি প্রতীকী (Photo Credit: PTI)

নতুন দিল্লি, ৩০ এপ্রিল: এবার মে মাসকে স্বাগত জানাতে হবে। মে (May Month) মাসে ব্যাঙ্কে বেশ কয়েকটি ছুটি (Bank Holidays) রয়েছে। সাধারণ ব্যাঙ্কগুলি প্রতি মাসের দ্বিতীয় ও চতুর্থ শনিবার বন্ধ থাকে। দেশের সমস্ত সরকারি ও বেসরকারি ব্যাঙ্ক মাসের প্রথম দিন অর্থাৎ ১ মে বন্ধ থাকবে। এছাড়াও এই মাসে রয়েছে অক্ষয় তৃতীয়া (Akshaya Tritiya), বুদ্ধ পূর্ণিমা (Buddha Purnima), ইদ-উল-ফিতর (Eid-UI-Fitra)-র মতো উৎসবের দিন। রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের জন্মদিন উপলক্ষে পশ্চিমবঙ্গে ৮ মে ব্যাঙ্ক ছুটি থাকবে। কাজি নজরুল ইসলামের জন্মদিন ২৪ মে ত্রিপুরায় বন্ধ থাকবে ব্যাঙ্ক।

মে মাসে ব্যাঙ্কে ছুটির তালিকা ইতিমধ্যেই ভারতীয় রিজার্ভ ব্যাঙ্ক বা আরবিআই (RBI) তৈরি করেছে। আগামী মাসে মোট ১১ দিন বন্ধ থাকবে ব্যাঙ্ক। রিজার্ভ ব্যাঙ্কের ক্যালেন্ডার বলছে, মে মাসের শুরুতেই ৪ দিনের ছুটি রয়েছে। এই ছুটিগুলি রাজ্যভিত্তিক হয়। সেখানকার উৎসব অনুসারে এই তালিকা প্রকাশিত হয়। তবে মোট একটি তালিকাতেই সব রাজ্যের ছুটি উল্লেখ থাকে। এই দিনগুলি বাদ দিয়ে ব্যাঙ্কে গিয়ে গুরুত্বপূর্ণ কাজগুলি সারতে হবে। আরও পড়ুন: Delhi: দাবদাহে জ্বলছে দিল্লি, আজও রেকর্ড তাপমাত্রা রাজধানী শহরে

ব্যাঙ্কগুলির পক্ষ থেকে গ্রাহকদের মে মাসে ব্যাঙ্কে যাওয়ার আগে সব ছুটির দিনগুলি দেখে নিতে অনুরোধ করা হয়েছে। তাই এক ঝলকে দেখে নিন কোন কোন দিন ব্যাঙ্ক বন্ধ থাকবে।

কোন কোন দিন ব্যাঙ্কে ছুটি:

  • ১ মে: মে দিবস
  • ২ মে: ভগবান শ্রী পরশুরাম জয়ন্তী (ছুটি রয়েছে অনেক রাজ্যেই), ইদ (কোচি এবং তিরুবনন্তপুরম)
  • ৩ মে: ভগবান শ্রী পরশুরাম জয়ন্তী/ ইদ/ বাসভ জয়ন্তী/ অক্ষয় তৃতীয়া (কোচি এবং তিরুবনন্তপুরম ছাড়া সমগ্র ভারতে ছুটি)
  • ৮ মে: রবিবার
  • ৯ মে: রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের জন্মদিন (পশ্চিমবঙ্গ)
  • ১৪ মে: দ্বিতীয় শনিবার
  • ১৫ মে: রবিবার
  • ১৬ মে: বুদ্ধ পূর্ণিমা (আগরতলা, বেলাপুর, ভোপাল, চণ্ডীগড়, দেরাদুন, জম্মু, কানপুর, কলকাতা, লখনউ, মুম্বই, নাগপুর, নতুন দিল্লি, রায়পুর, রাঁচি, সিমলা এবং শ্রীনগর)
  • ২২ মে: রবিবার
  • ২৮ মে: চতুর্থ শনিবার
  • ২৯ মে: রবিবার

ব্যাঙ্কের ছুটি রাজ্য অনুসারে আলাদা আলাদা হয়। কখনও কখনও সমস্ত ব্যাঙ্ক সংশ্লিষ্ট দিনে ছুটি দেয় না। ছুটির দিন একটি বিশেষ রাজ্যে পালন করা উৎসবগুলির ওপর নির্ভর করে।