Annapurna Devi: সাংসদ এবং মন্ত্রিত্ব দুই পদই হাতছাড়া, স্মৃতির ফেলে আসা নারী ও শিশু উন্নয়ন মন্ত্রীর আসনে অন্নপূর্ণা
Annapurna Devi, Smriti Irani (Photo Credits: ANI, X)

নয়া দিল্লি, ১১ জুনঃ রবিবার যখন রাষ্ট্রপতি ভবনে প্রধানমন্ত্রী সহ তাঁর মন্ত্রিসভার ৭২ জন সদস্য শপথ গ্রহণ করেন তখন জয়ধ্বনি আর উচ্ছ্বাসে ফেটে পড়ছিল গোটা অনুষ্ঠানস্থল। তৃতীয়বার মোদী সরকার গঠিত হওয়ায় আনন্দের কোন সীমা ছিল না বিজেপি কর্মী সমর্থকদের। তবে এই গোটা অনুষ্ঠানে কেবল একজনের মুখেই কোন হাসি ছিল না। তিনি হলেন স্মৃতি ইরানি (Smriti Irani)। আমেঠিতে (Amethi) বিপুল ভোটে কংগ্রেসের কিশোরীলাল শর্মার কাছে হেরেছেন তিনি। স্বাভাবিক ভাবেই মোদী ৩.০ সরকারের মন্ত্রিসভা থেকে বাদ পড়েছে স্মৃতির নাম। তাই গোটা অনুষ্ঠানে একবারের জন্যেও স্মৃতির মুখে হাসি চোখে পড়েনি। তাঁর ফেলে আসা নারী ও শিশু উন্নয়ন মন্ত্রীর আসনে বসেছেন অন্নপূর্ণা দেবী (Annapurna Devi)। সোমবার প্রধানমন্ত্রী আবাসে ক্যাবিনেট মন্ত্রীদের নিয়ে প্রথমবার বৈঠকে বসেন মোদী। আর সেখানেই ৩০ জন পূর্ণমন্ত্রীকে মন্ত্রিত্ব ভাগ করে দিয়ে নতুন মন্ত্রিসভা গঠন করেছেন তৃতীয়বারের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী (Narendra Modi)।

২০১৯ সালের লোকসভা ভোটে উত্তরপ্রদেশের (Uttar Pradesh) আমেঠি কেন্দ্র থেকে রাহুল গান্ধীকে (Rahul Gandhi) বিপুল ভোটে হারিয়ে সাংসদ হয়েছিলেন স্মৃতি ইরানি (Smriti Irani)। লোকসভায় সাংসদ হয়েই মোদীর মন্ত্রিসভায় জায়গা করে নেন তিনি। নারী ও শিশু উন্নয়ন দফতরের (Ministry of Women and Child Development) পূর্ণমন্ত্রী করা হয় স্মৃতিকে। তবে চব্বিশে স্মৃতির সাংসদ এবং মন্ত্রী দুই আসনই হাতছাড়া হল। কংগ্রেসের কিশোরীলাল শর্মার কাছে ১ লক্ষ ৬৭ হাজার ১৯৬ ভোটে হেরেছেন প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী। কেন্দ্রীয় মন্ত্রী সভায় স্মৃতির ফেলে আসা আসনে এবার বসলেন ঝাড়খণ্ডে বিজেপির ওবিসি মুখ শ্রীমতি অন্নপূর্ণা দেবী (Annapurna Devi)। সোমবারই প্রধানমন্ত্রী আবাসের বৈঠকে নারী ও শিশু উন্নয়ন দফতরের মন্ত্রী হিসাবে অন্নপূর্ণা দেবীর নাম ঘোষণা করেছেন মোদী।

স্মৃতির আসনে... 

মঙ্গলবার নিজের দফতরে গিয়ে কেন্দ্রীয় মন্ত্রী হিসাবে নারী ও শিশু উন্নয়ন মন্ত্রীর দায়িত্ব নিলেন বিজেপি সাংসদ। বললেন, প্রধানমন্ত্রীর কাছে আমি কৃতজ্ঞ। কারণ তিনি আমার উপর ভরসা করে এই দায়িত্ব দিয়েছেন। মোদীর 'বিকশিত ভারত'এর রূপকল্প পূরণের চেষ্টা করব আমি'।