Coronavirus Cases in Maharashtra: দাদারের সবজি বাজারে জনতার ঢল, করোনার দৈনিক সংক্রমণে রেকর্ড মহারাষ্ট্রে
দাদার মার্কেটে জনারণ্য (Photo Credits: ANI)

মুম্বই, ১৫ মার্চ: সোমবার গত ৩ মাসে করোনা সংক্রমণের দৈনিক রেকর্ড ভাঙল মহারাষ্ট্র (Coronavirus Cases in Maharashtra)। মুম্বইয়ের দাদার বাজারে গাদাগাদি ভিড়। সবাই প্রায় একসঙ্গেই বাজারে চলে এসেছেন সবজি আনাজ বাজার করতে। একদিনে মুম্বইয়েও আক্রান্ত প্রায় ২ হাজারের কাছাকাছি। করোনার দ্বিতীয় ঢেউ যখন কিছু কিছু রাজ্যে ফের আছড়ে পড়ছে, তখন জনগণের সচেতন না হওয়ার চিত্র করোনার প্রকোপ নিয়ে চিন্তা বাড়াচ্ছে প্রশাসনের। কারণ আইসিএমআর কিছুদিন আগেই সতর্ক বার্তা দিয়েছে, ‘অতিমারি শেষ হয়ে গিয়েছে এ রকম ভাবার কোনও কারণ নেই’। সঙ্গে করোনার নতুন রূপের সন্ধানও পাওয়া গিয়েছে দেশের বিভিন্ন শহরে। সে জন্যই মাস্ক ব্যবহার এবং যতটা সম্ভব ভিড় এড়ানোর পরামর্শ দিচ্ছেন বিশেষজ্ঞরা। কিন্তু তাতে লাভ হচ্ছে কই?

উল্লেখ্য, দেশে করোনার জেরে রোজ মৃত্যু ১০০-র নিচে নেমেছিল। গত কয়েক দিনে তা ফের ১০০ কখনও ১৫০ পেরিয়ে যাচ্ছে। গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত ১১৮ জন। এ নিয়ে মোট মৃত ১ লক্ষ ৫৮ হাজার ৭২৫ জন। এই সংক্রমণ বৃদ্ধির জেরে দেশে অ্যাকটিভ রোগীর সংখ্যাও রোজ বাড়ছে। এখন তা প্রায় ২ লক্ষ ১৯ হাজার ২৬২। ছত্তীসগড়, মধ্যপ্রদেশেও ধারাবাহিক ভাবে বেড়ে চলেছে। মহারাষ্ট্রের অবস্থা তো সবচেয়ে খারাপ। মূলত এই ক’টি রাজ্যেই হচ্ছে দেশের মোট দৈনিক সংক্রমণের ৯০ শতাংশ। পশ্চিমবঙ্গেও একটা সময় দৈনিক আক্রান্ত ১৫০-র আশপাশে নেমে এসেছিল। এখন তা আবার ২৫০-র বেশি হচ্ছে। দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্ত হয়েছেন ২৬ হাজার ২৯১ জন। প্রায় তিন মাস পর দেশের দৈনিক সংক্রমণ এত বেশি হল। দেশে মোট আক্রান্ত ১ কোটি ১৩ লক্ষ ৮৫ হাজার ৩৩৯। আরও পড়ুন-WB Weather Update: ফাগুন শেষে তপ্ত রাজ্য, বৃষ্টির দেখা নেই

ইতিমধ্যেই দেশজুড়ে করোনার টিকাকরণ শুরু হয়ে গেছে। মহারাষ্ট্রের নাগপুরের সূতির মার্কেটে গত শুক্রবার জনতার ঢল নামে। তাতে সোশ্যাল ডিস্ট্যান্সিং মাথায় উঠেছে। মাস্ক ছিল না বেশিরভাগ জনগণের মুখে। এর জেরে করোনার নতুন স্ট্রেন যে ছড়িয়েছে তা স্পষ্ট।