Uttar Pradesh: ভ্যাকসিনের ভয়ে ড্রামের পিছনে লুকিয়েও স্বাস্থ্যকর্মীদের হাত থেকে রক্ষা পেলেন না বৃদ্ধা (দেখুন ভিডিও)
ভ্যাকসিনে ভয়ে ড্রামের পিছনে লুকিয়ে বৃদ্ধা (Picture Credits: Videograb)

ইটাওয়া, ৩ জুন: করোনার ভ্যাকসিন (COVID-19 Vaccine) নিতে ভয়ে কাঁটা। ড্রামের পিছনে লুকিয়ে ভেবেছিলেন স্বাস্থ্যকর্মীদের হাত থেকে পার পেয়ে যাবেন বৃদ্ধা। কিন্তু তা আর হল কই? গত ১ জুন উত্তরপ্রদেশের (Uttar Pradesh) চন্দনপুর গ্রামে বাড়ি বাড়িতে করোনার ভ্যাকসিন দিতে যান স্বাস্থ্যকর্মীরা। সেই এই বৃদ্ধার বাড়িতে এসে পৌঁছয়, তাঁদের দেখে চক্ষু চড়কগাছ অশীতিপর বৃদ্ধার। সূচ ফোঁটাতে আসছে? ভেবেই ভয়ে কাঁটা হয়ে লুকিয়ে পড়েন ড্রামের পিছনে। জেদ ধরেন কিছুতেই ভ্যাকসিন নেবেন না। জ্বর আসবে, গায়ে ব্যাথা হবে, এই ভয়ই পাচ্ছিলেন বৃদ্ধা। কিন্তু অবশেষে তাঁকে ধরেবেঁধে নিয়ে যান স্বাস্থ্যকর্মীরা।

অবশ্য এই ভয় শুধু একা এই বৃদ্ধার নয়। গ্রামের দিকে ভ্যাকসিন নিতে ভয় পাচ্ছেন বহু মানুষই। ইটাওয়া সদরের বিধায়ক ভদৌরিয়া চন্দনপুর গ্রামে ঘুরে ঘুরে সকলে যাতে করোনার ভ্যাকসিন নেন তার আর্জি জানান। যেই না এই বৃদ্ধার বাড়ির দোরগোড়ায় স্বাস্থ্যকর্মীরা পৌঁছয়, ড্রামের পিছনে লুকিয়ে পড়েন তিনি। ভিডিওতে দেখা যায়, মাকে খুঁজছেন ব্যক্তি। সেই মা কিনা লুকিয়ে ড্রামের পিছনে। কিছুতেই ভ্যাকসিন নেবেন না বলে জেদ করে বসেন।

আরও পড়ুন, মৃত্যুর হার চিন্তায় রেখে দেশে দৈনিক করোনা সংক্রমণ দেড় লাখের নিচে

বারবার তাঁকে বাড়ির বাইরে বেরোতে বলা হয়। এরপর ধৈর্য না রাখতে পেরে ঘরের ভিতরেই ঢুকে আসেন স্বাস্থ্যকর্মীরা। বিধায়কও ঠায় দাঁড়িয়ে। এরপর একপ্রকার ধরে বেঁধেই বাইরে নিয়ে আসা হয় বৃদ্ধাকে।