প্রয়াত টলিউড অভিনেতা নিমু ভৌমিক, বাংলা চলচ্চিত্র মহলে শোকের ছায়া
নিমু ভৌমিক(Photo Credit: Facebook)

কলকাতা, ২৭ আগস্ট:  প্রয়াত বাংলা ছবির বর্ষীয়ান অভিনেতা নিমু ভৌমিক (Nimu Bhowmick)। মঙ্গলবার বিকেলে তাঁর গড়িয়ার বাড়িতে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন এই টলি অভিনেতা। পরিবার সূত্রে জানা গিয়েছে, বার্ধক্যজনিত অসু্স্থতায় দীর্ঘদিন ধরেই কাবু ছিলেন তিনি। গতমাসে এই অসুস্থতা বাড়াবাড়ি পর্যায়ে পৌঁছালে তাঁকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে শারীরিক অবস্থা স্থীতিশীল হলে বাড়িতে নিয়ে আসা হয়। তারপর থেকে বাড়িতেই ছিলেন নিমুবাবু। এদিন আচমকা অসুস্থ হয়ে পড়েন ও কিছুক্ষণের মধ্যেই তাঁর মৃত্যু হয়। মৃত্যুকালে অভিনেতার বয়স হয়েছিল ৮৪ বছর।

অসাধারণ বাচন ভঙ্গি ও নেতিবাচক চরিত্রে অভিনয়ের দক্ষতার জন্য আজীবন বাংলা সিনেমার জগৎ নিমু ভৌমিককে মনে রাখবে। খলচরিত্রে অভিনয় করলেও মানুষ নিমু ভৌমিক ছিলেন দারুণ।  রাখবে বাংলা সিনেমা। সিনেমার কেরিয়ার শেষে রাজনীতিতেও নাম লেখান তিনি। ২০১৪ সালে বিজেপির হয়ে ভোটেও লড়েছিলেন।  উত্তর দিনাজপুরের রায়গঞ্জ আসন থেকে দুই লক্ষেরও কিছু বেশি ভোট পেয়েও হেরে যান তিনি। পরে আর কখনওই বিজেপির রাজ্য দপ্তরে তাঁকে যেতে দেখা যায়নি। এমনকী, পরিচিত মহলে বিজেপির সংসর্গ ত্যাগের কথাও  এই প্রবীণ অভিনেতাকে বলতে শোনা গিয়েছে।

ফিরে আসি অভিনেতার জীবনকথায়,  ১৯৩৫ সালে  তৎকালীন পূর্ববঙ্গের দিনাজপুর জেলায় জন্মগ্রহণ করেন নিমু ভৌমিক। তাঁর অভিনীত উল্লেখযোগ্য ছবিগুলির মধ্যে রয়েছে 'গণদেবতা', 'দাদার কীর্তি', 'বাঘিনী', 'মঙ্গলদীপ', 'অপরাজিতা', 'নদীর পাড়ে আমার বাড়ি'  'ছোট বউ',  'সাহেব'  'অপরাজিত' ইত্যাদি। বেশ কিছুদিন ধরেই বার্ধক্যজনিত অসুস্থতা প্রবীণ অভিনেতাকে গ্রাস করেছিল। তিনি স্নায়ুর সমস্যায় জেরবার ছিলেন অভিনেতা। পরিজনদের কাউকেই ঠিকমতো চিনতে পারছিলেন না।