ওয়েলসে মাদার টেরেসার সহকারীর অস্বাভাবিক মৃত্যু, কলকাতায় মাদারহাউসে শোকের ছায়া
প্রতীকী ছবি(Photo Credit: PTI)

ওয়েলস, ২৫ জুলাই: অজ্ঞাত পরিচয় দুষ্কৃতীদের আক্রমণে নিহত হলেন মাদার টেরেসার একদা সহকারী মার্ক ব্লুমফিল্ড। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৫৪ বছর। কলকাতায় মাদার যখন আর্তের সেবায় দিনরাত কাজ করে চলেছেন তখন তাঁকে যোগ্য সঙ্গত দিয়েছেন মার্ক। সেই মানুষটিই মারা গেলেন উন্মত্ত দুষ্কৃতীদের তাণ্ডবে। মর্মান্তিক ঘটনাটি ঘটেছে দক্ষিণ ওয়েলসের এক পাবে। গত বৃহস্পতিবার পাবে যান মার্ক। সেখানেই ওই অজ্ঞাতপরিচয় দুষ্কৃতী দলের সঙ্গে তাঁর বচসা বাধে, সামান্য কথা কাটাকাটির পর মার্ক সেখান থেকে সরে আসতে চেয়েছিলেন। অভিযোগ, বাকিরা তাকে সেই সুযোগ না দিয়ে বেধড়ক পেটায়

গুরুতর আহত অবস্থায় মার্ক ব্লুমফিল্ডকে হাসপাতালে ভর্তি করা হলে গত শনিবার সেখানে তাঁর মৃত্যুহয়। হাসপাতাল সূত্রে জানা গিয়েছে, বৃদ্ধ মার্কের গোটা শরীরে আঘাত ছিল গুরুতর, ইছ্ছে থাকলেও এতটা অসুস্থতার সঙ্গে লড়াই করতে পারেনি তাঁর শরীর। শেষপর্যন্ত মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়ে এই মহান প্রাণ। কলকাতায় থাকার সময় মাদারের আদর্শকে ব্রত করে মার্ক অসহায় দুস্থদের জন্য হাসপাতাল স্কুল গড়ে তোলেন। চোখের ছানি কাটাবার ক্যাম্প করে গরীবদের পরিষেবা পৌঁছে দেওয়া ছিল তাঁর লক্ষ্য। দুস্থ পরিবারের মেয়েদের জন্য স্কুল গড়ে তোলেন, যাতে তারা কাজ চালানোর মতে শিক্ষাগত যোগ্যতা অর্জন করে থাকেন। মাদার না থাকলেও তাঁর চলার পথ থেকে কোনওদিনই সরে আসেননি মার্ক। তিনি মনে করতেন দান করে নয়, দুস্থদের পরিস্থিতির উন্নতি করলেই তাদের প্রকৃত উন্নতি সম্ভব।

মাদারের আদর্শ মাথায় করে মার্ক আফ্রিকার পিছিয়ে পড়া জনজাতিকেও সেবার পথ দেখিয়েছেন। সেই মানুষটির এমন অসহায় মৃত্যুতে হতবাক গোটা পরিবার। তবুও তিনি বেঁচে থাকবেন তাঁর সেবার আদর্শের মধ্যে দিয়ে।

 

 

.