Kidnap in Kolkata: শহর কলকাতায় সিনেমার কায়দায় অপহরণ ওয়েব ডিজাইনারকে, ৩ লক্ষ টাকা মুক্তিপণ আদায়
কলকাতা ( প্রতীকী ছবি:File Photo)

কলকাতা, ১৩ ফেব্রুয়ারি: শহর কলকাতায় (Kolkata) ভোরের আলো আঁধারিতে সিনেমার কায়দায় অপহরণের (Kidnap) অভিযোগ। রাস্তা আটকে বাইকচালককে ট্যাক্সিতে তুলে চম্পট দিল অপহরণকারীরা। পরে তিন লাখ টাকা মুক্তিপণ দিয়ে দুষ্কৃতীদের হাত থেকে ছাড়া পেলেন অপহৃত। এ ঘটনায় গ্রেফতার করা হয়েছে দু’জনকে।

কাজ সেরে সল্টলেক থেকে বাইকে চড়ে বাড়ি ফিরছিলেন তিলজলার এক যুবক। তিনি পেশায় একজন ওয়েব ডিজাইনার। পার্ক সার্কাস কানেক্টরের সামনে ভোরবেলা রাস্তা প্রায় সুনসান। আচমকাই পিছন থেকে তাঁর বাইকে ধাক্কা মারে একটি ট্যাক্সি। কিছু বুঝে ওঠার আগেই রাস্তা আটকে দাঁড়ায় ট্যাক্সি। এরপর জোর করে বাইক থেকে নামিয়ে ওই যুবককে ট্যাক্সিতে তুলে নেয় কয়েকজন। ট্যাক্সির আরোহী চার দুষ্কৃতী তাঁর শরীরে ছুরি ও রিভলভার ঠেকিয়ে ধরে। ঠিক যেন সিনেমা! তাঁকে নিয়ে বিভিন্ন রাস্তায় ট্যাক্সি নিয়ে ঘুরতে থাকে দুষ্কৃতীরা। সঙ্গে ছিল নগদ ২১ হাজার টাকা, তা কেড়ে নেওয়া হয়। আরও পড়ুন, 'কেন্দ্র নজরদারি চালাচ্ছে', দিল্লিতে নিজের বাসভবনের বাইরে বিএসএফের প্রহরায় দাবি সাংসদ মহুয়া মৈত্রের

এরপর শেষ নয়। আরও টাকার দাবিতে চলতে থাকে হুমকি। অগত্যা নিজের ছোট ভাইকে ফোন করেন ২৮ বছর বয়সী মহম্মদ নাদিম। তার কাছ ৩ লাখ টাকা দাবি করা হয়। সেই টাকা অনলাইন ট্রান্সফার হওয়ার পর অপহৃতকে কসবার একটি মলের সামনে চলন্ত ট্যাক্সি থেকে ফেলে দেওয়া হয়। চলন্ত গাড়ি থেকে ছুঁড়ে ফেলায় নাদিমের শরীরে চোট লাগে।

এরপর প্রগতি ময়দান থানায় অভিযোগ করেন নাদিম। লালবাজার জানায়, শনিবার অভিযুক্ত ট্যাক্সিচালক সহ দু’জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। পলাতক আরও দুই অভিযুক্ত। ধৃত ট্যাক্সিচালকের নাম সোহেল আলি ওরফে আমন (৩০) এবং অপর অভিযুক্তের নাম শেখ আনসার আলি ওরফে নিয়াজ (৩৫)।