Soumitra Khan: ‘যেখানে হেঁটেছেন সব শেষ হয়েছে, মমতা ব্যানার্জি কালনাগিনী’ একি বললেন বিষ্ণুপুরের বিজেপি সাংসদ?
মমতা ব্যানার্জি(Photo Credits: IANS)

বাঁকুড়া, ২৮ জানুয়ারি: “পুলিশের গাড়িতে আগুন দিয়ে তৃণমূলের চামড়া গুটিয়ে দেব।” বাঁকুড়ার জনসভায় ফের সীমা ছাড়ালেন বিজেপি সাংসদ সৌমিত্র খাঁ (Soumitra Khan)। CAA, NRC-র সমর্থনে সোমবার বাঁকুড়া পুরসভার ২০ নম্বর ওয়ার্ডে যান বিষ্ণুপুরের সাংসদ সৌমিত্র খাঁ ও বাঁকুড়ার সাংসদ সুভাষ সরকার। সেখানেই তিনি রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী তথা তৃণমূলনেত্রীকে নজিরবিহীন ভাষায় আক্রমণ করেন। বলেন, “মমতা ব্যানার্জি বাংলার কালনাগিনী। মুখ্যমন্ত্রী যাঁকে খান তিনি মারা যান। পশ্চিমবাংলার মানুষকে মুখ্যমন্ত্রী যখন ধরেছেন তখনই শেষ করেছেন। সিঙ্গুর ধরেছেন, সিঙ্গুর শেষ হয়ে গিয়েছে। নন্দীগ্রাম ধরার পরই সেখানে ১৪ জন খুন হয়েছেন। বাঁকুড়াকেও ধরে শেষ করেছেন। যেখানে হেঁটেছেন সেখানের শিল্প-শিক্ষা শেষ হয়ে গিয়েছে। তাই কালনাগিনী ছাড়া তাঁকে আর কিছুই বলা যায় না।”

তবে এবার প্রথম এমন কটূ মন্তব্যে মুখর হয়েছেন সৌমিত্র খাঁ, এমনটা ভাববেন না। বেশ কিছুদিন আগে বুদ্ধিজীবীদের তৃণমূলের কুকুর হিসেবে আখ্যায়িত করেছেন তিনি। একই সঙ্গে দলীয় সভাপতি দিলীপ ঘোষের গুলি করে মারার মন্তব্যকে সমর্থনও করেছেন তিনি। সেদিন বসিরহাটে সংশোধিত নাগরিকত্ব আইনের সমর্থনে সভা করতে গিয়ে সৌমিত্রবাবু বলেছিলেন, “যারা নিজেদের বুদ্ধিজীবী বলে রাস্তায় নামছেন, তাঁরা আদতে বুদ্ধিজীবী নন। তাঁদের বলছি, আপনারা শয়তান। যাঁরা শিক্ষক, তাঁরাই আদতে বুদ্ধিজীবী। বুদ্ধিজীবীরা রাজ্য সরকারের থেকে নিয়মিত টাকা পান বলেই তৃণমূলের সমর্থন করেন। যাঁরা পার্ক স্ট্রিট কাণ্ডে চুপ থাকেন, তাঁরা তৃণমূলের কুকুর ছাড়া আর কিছু নয়।” আরও পড়ুন-BJP MP Parvesh Verma: ‘দিল্লি হাতের মুঠোয় এলেই ১ ঘণ্টায় শাহিন বাগ ফাঁকা করব’, রাজধানীর জনসভায় হুমকি বিজেপি সাংসদের

সেই সৌমিত্র খাঁ-ই একদা তৃণমূল সাংসদ হিসেবে নিজের রাজনৈতিক কেরিয়ারকে মজবুত করেছিলেন। রাজ্যের আগামী বিধানসভা ভোট নিয়ে বিশেষ আশাবাদী তিনি। তাইতো হুমকি দিতেও ছাড়লেন না গতকাল। বললেন, “শাসকদল পঞ্চায়েত নির্বাচনের মতো ভোট করাতে চাইলে, বিজেপি মেরে চামড়া গুটিয়ে দেবে। পুলিশ শাসকদলকে সাহায্য করলে, পুলিশের গাড়িতে আগুন দিয়ে দেওয়া হবে।”