West Bengal: 'বিজেপি ক্ষমতায় এসে বদলা নেবে', দিলীপ ঘোষকে সন্ত্রাসবাদী বললেন ফিরহাদ হাকিম?
ফিরহাদ হাকিম ও দিলীপ ঘোষ (Photo Credit: PTI)

কলকাতা, ২২ জুন: শাসক তৃণমূলের বিরুদ্ধে প্রতিশোধের ভাবনা বিজেপির (BJP) রাজ্য সভাপতির। এই ঘটনায় বেজায় চটেছেন শ্রীরামপুরের তৃণমূল সাংসদ কল্যাণ ব্যানার্জি। তিনি এনিয়ে দিলীপ ঘোষকে আক্রমণ করতেও ছাড়েননি। এদিকে কল্যাণবাবুর থেকে এক কাঠি এগিয়ে গিয়ে দিলীপ ঘোষকে তালিবান ও পাক জঙ্গি সংগঠন জইশ-ই-মহম্মদের সঙ্গে তুলনা করলেন পুর ও নগরোন্নয়ন মন্ত্রী ফিরহাদ হাকিম। রবিবারই বিজেপির রাজ্য সভাপতি বলেছেন, পশ্চিমবঙ্গে সমস্যা সমাধান করতে হলে হিংসার পথই নিতে হবে। এটাই একমাত্র রাস্তা। দিলীপ ঘোষের এই বক্তব্যের পরে পরেই রাজনৈতিক চাপানউতোর শুরু হয়েছে রাজ্যজুড়ে।

এর পরিপ্রেক্ষিতে কল্যাণ ব্যানার্জি বলেছেন, “শান্তির পক্ষেই রয়েছে তৃণমূল। বিজেপি নেতাদের থেকে আমাদের কোনও লেকচারের প্রয়োজন নেই। তাঁরা জানেন, গান্ধীজীকে কারা খুন করেছে। হিংসা ছড়িয়েই বিজেপি গুজরাটে ক্ষমতায় এসেছে। এখানে কেবল শান্তি বিরাজ করে।” কল্যাণবাবুকে সমর্থন করে প্রায় একই কথা বলেছেন মন্ত্রী ফিরহাদ হাকিম। তিনি তো দিলীপ ঘোষকে সন্ত্রাসবাদী আখ্যাও দিয়েছেন। তালিবান  ও জইশের মতো জঙ্গি সংগঠনের সঙ্গে তুলনা করেছেন। এই প্রসঙ্গে বিজেপিকে একহাত নিয়ে ফিরহাদ হাকিম বলেন, “জঙ্গিদের সমষ্টি হল বিজেপি। তারা জঙ্গিদের পোশাকেই থাকে। যেমন তালিবান বা জইশ-ই-মহম্মদ। যারা মানুষ খুন করা ও হিংসা ছড়ানো ছাড়া আর আর কিছু জানে না। আর এই শিক্ষাই অন্যদের দেয়।” আরও পড়ুন-COVID-19 Cases In India: ১ দিনে নতুন আক্রান্ত ১৪, ৮২১, দেশে মোট করোনা রোগীর সংখ্যা ৪ লক্ষ ২৫ হাজার ২৮২

রবিবার দিলীপ ঘোষ বলেন, “বিজেপি নেতাদের বিরুদ্ধে বদলা নিতেই তৃণমূল কংগ্রেস ঝামেলা করছে। এদিকে তৃণমূল ক্ষমতায় আসার আগে বলেছিল, তাঁরা বদলা নয় বদল চায়। কিন্তু গত চার বছরে রাজনৈতিক হিংসা ছড়িয়েছে। এই কয়েকটি বছরে রাজ্যে অন্তত ১০০-র বেশি বিজেপি কর্মী খুন হয়েছেন। যেদিন আমরা ক্ষমতায় আসব সেদিন এই সমাজ বিরোধী ও দুর্নীতিগ্রস্ত আধিকারিকদের বিরুদ্ধে বদলা নেব। আমরা হিংসায় বিশ্বাস করি।” কয়েকদিন আগেই দিলীপ ঘোষ মমতা ব্যানার্জির ২০১১-র ‘বদলা নয় বদল চাই’ স্লোগানটি শেয়ার করে লেখেন ‘বদলাও হবে বদলও হবে’।