ICC World Cup 2019: ফাইনালে এসেই চলতি বিশ্বকাপের দ্রুততম ডেলিভারি মার্ক উডের, লর্ডসে উডের ১৫৪ কিমি বেগের গোলায় মুগ্ধ সোশ্যাল মিডিয়া
মার্ক উড। (Photo Credits: Twitter)

লন্ডন, ১৪ জুলাই: বিশ্বকাপ ফাইনালে (ICC World Cup 2019) এসেই চলতি বিশ্বকাপের সবচেয়ে দ্রুত ডেলিভারিটা করলেন ইংল্যান্ডের পেসার মার্ক উড (Mark Wood)। রবিবার লর্ডসে নিউ জিল্যান্ডের বিরুদ্ধে এই ব্রিটিশ পেসার ১৫৪ কিলোমিটার, প্রতি ঘণ্টায় একটি ডেলিভারি করলেন। চলতি বিশ্বকাপে অস্ট্রেলিয়ার মিচেল স্টার্ক, ইংল্যান্ডের জোফ্রে আর্চারের রেকর্ড ভেঙে এই ইংল্যান্ড পেসার সবচেয়ে জোরে বল করলেন।

ফাইনালের জন্যই বোধহয় সেরাটা তুলে রেখেছিলেন উড। আজ রস টেলরকে ফিরিয়ে দলকে বড় সফলতা এনে দেন এই ইংলিশ পেসার।

উড সহ আজ ইংল্য়ান্ডের চার পেসারই বেশ গতিতে এবং শৃঙ্খলার সঙ্গে বল করেন। লিয়াম প্ল্যাঙ্কেট একাই ধস নামান কিউই ইনিংসে। কেন উইলিয়ামসন ও হেনরি নিকোলাসকে ফিরিয়ে ইংল্যান্ডকে চালকের বসান প্ল্যাঙ্কেট। নিউ জিল্যান্ড ইনিংসের ২৭তম ওভারে হেনরি নিকোলাসকে যে কায়দায় বোল্ড করেন প্ল্য়াঙ্কেট, তা সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল। এই হেনরিই কিন্তু কিউইদের ইনিংসকে ধরে রেখেছিলেন--

টসে জিতে প্রথমে ব্য়াট করতে নেমে ফাইনালের শুরুটা কিন্তু একদমই ভাল করতে পারেনি নিউ জিল্যান্ড। শুরুতেই ওকসের বলে এলবি হয়ে ফিরে যান মার্টিন গুপ্তিল (১৯)। তবে এরপর হেনরি নিকোলাস-কেন উইলিয়ামসন দ্বিতীয় উইকেটে দলের ইনিংস গুছিয়ে নেওয়ার কাজে লাগেন। কিন্তু ইংল্যান্ড পেসার লিয়াম প্ল্যাঙ্কেট আক্রমণে আসতেই কেন-হেনরির ৮২ পার্টনারশিপ ভেঙে যায়। কেন উইলিয়াসমন (৩০), হেনরি নিকোলাস-কে (৫৫)-কে আউট করে দলকে ভাল জায়গায় নিয়ে যান প্ল্যাঙ্কেট। দলের সবচেয়ে অভিজ্ঞ পেসার রস টেলরও (১৫)-ও বেশিক্ষণ টেকেননি। ১ উইকেটে ১০৩ থেকে নিউ জিল্যান্ড ৪ উইকেটে ১৭৩ হয়ে যায়।