KKR vs RCB IPL 2024: ইডেনে টানটান থ্রিলারে এক রানে জয় কেকেআর-এর, শেষ বলে রান আউটে কর্ণের রথের চাকা আটকে বেঙ্গালুরুর হার
Last Ball Drama. KKR Keeper Phil Salt. (Photo Credits: X)

আইপিএলের ইতিহাসে স্মরণীয় থ্রিলার হিসেবে রবিবার সন্ধ্যায় ইডেনে কেকেআর বনাম আরসিবি ম্যাচটা থেকে যাবে। কেকেআর-এর ২২২ রান তাড়া করতে নেমে ম্যাচের শেষ ওভারে কেকেআর পেসার মিচেল স্টার্কের তিনটি বলে তিনটি ছক্কা হাঁকিয়ে প্রায় জিতিয়ে দিয়েছিলেন কর্ণ শর্মা। কিন্তু শেষ বলে একটুর জন্য রান আউটটাই কেকেআর-এর মুখে শেষ হাসি এনে দিল। ১৯তম ওভারের শেষ বলে দীনেশ কার্তিক (১৮ বলে ২৫)-এ আউটের পর সবাই ধরেই নিয়েছিলেন, সহজেই জিতবে কলকাতা। শেষ ওভারে জিততে হলে আরসিবি-কে করতে হত ২১ রান, হাতে ২টি উইকেট। ক্রিজে ছিলেন কর্ণ শর্মা ও মহম্মদ সিরাজ।

শেষ ওভারের প্রথম বলে ওভার বাউন্ডারি হাঁকান কর্ণ। তারপরের বলে রান আসেনি। এরপর তৃতীয় ও চতুর্থ বলে ফের ওবার বাউন্ডারি হাঁকিয়ে দলকে প্রায় ম্যাচ জিতিয়েই ফেলেছিলেন কর্ণ। কিন্তু পঞ্চম বলে তিনি আউট হয়ে যান। এরপর ক্রিজে নামেন লোকি ফার্গুসন।

দেখুন শেষ বলে নাটকীয় রান আউটের ভিডিয়ো

স্টার্কের আউটসাইড অফ স্ট্যাম্পের বলটা কভারে পাঠিয়ে দু রান নিতে ছোটেন ফার্গুসন। কিন্তু শেষ অবধি তিনি রান আউট হয়ে যান। কলকাতা জেতে ১ রান। ক দিন আগেই ইডেনে রাজস্থানের বিরুদ্ধে ২২৩ রান করেও হেরেছিলেন শ্রেয়স আইয়ার, এদিন একটুর জন্য ২২২ রান করেও হার থেকে রক্ষা পেলে কেকেআর। রান তাড়া করতে নেমে হর্ষিত রানার বিতর্কিত বলে বিরাট কোহলি (১৮) আউট হন। রান পাননি অধিনায়ক ফাফ দু প্লেসিস (৭)। কিন্তু ৩৫ রানে ২ উইকেট থেকে ঝড় তুলতে শুরু করেন উইল জ্যাকস ও রজত পতিদার। জ্যাকস ৩২ বলে ৫৫ ও পতিদার ২৩ বলে ৫২ রানের বিস্ফোরক ইনিংস খেলেন। কিন্তু রাসেলের ওভারে পরপর দুটো উইকেট কেকেআর-এর পক্ষে খেলা ঘুরিয়ে দেয়। এরপর আরসিবি-কে ম্যাচে ফেরান কার্তিক ও সূয়েশ প্রভুদেশাই।

কেকেআর-এর এদিনের জয়ে নায়ক ব্যাটে বলে দুরন্ত পারফরম্যান্স করা আন্দ্রে রাসেল। প্রথমে ব্যাট হাতে ২০ বলে অপরাজিত ২৭ রান করার পর বল হাতেও জাদু দেখান রাসেল। হাই স্কোরিং ম্যাচে ২৫ রান দিয়ে নেন তিনটি গুরুত্বপূর্ণ উইকেট। এদিন কেকেআর-এর ইনিংসের শেষের দিকে রমনদীপ সিংয়ের ৯ বলে ২৪ রানের বিস্ফোরক ইনিংসটা জয়-পরাজয়ে বড় ভূমিকা নিল। আরও পড়ুন-দ্বিতীয় পাকিস্তানি মহিলা ক্রিকেটার হিসেবে ওয়ানডেতে ১০০ উইকেট নিদা দারের 

দেখুন খবরটি

এদিন কলকাতার বড় রানের পিছনে মূলত তিনজন বড় ভূমিকা নিলেন। একজন শুরুতে, একজন মাঝে, আরেকজন শেষে। ওপেনার ফিল সল্ট মাত্র ১৪ বলে ৪৮ রান করে দলকে মজবুত জায়গায় দাঁড় করিয়েছিলেন। কিন্তু বিনা উইকেটে ৫৬ থেকে ১৯ রানের মধ্যে তিনজন ব্যাটারকে হারিয়ে মারাত্মক চাপে পড়ে যায় কেকেআর। পরপর আউট হন সল্ট, সুনীল নারিন (১০), অঙ্গরিশ রঘুবংশী (৩)।

৭ ম্যাচ খেলে ১০ পয়েন্ট পেয়ে প্লে অফের দিকে এগিয়ে গেলেন শ্রেয়স আইয়ার-রা। কলকাতার পরবর্তী ম্যাচ শুক্রবার, ইডেন গার্ডেন্সে পঞ্জাব কিংসের বিরুদ্ধে।