Coronavirus Cases In India: দেশে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ছুঁল ২৭,৮৯২; মহারাষ্ট্রে করোনার কবলে ৮ হাজার ৮৬৮
ভারতে করোনাভাইরাস (Photo Credits: IANS)

নতুন দিল্লি, ২৭ এপ্রিল: সোমবার ভারতে মোট করোনা আক্রান্তের (Coronavirus Cases) সংখ্যা ২৭ হাজার ৮৯২। স্বাস্থ্য মন্ত্রকের রিপোর্ট বলছে, ২০ হাজার ৮৩৫ জন এই মুহূর্তে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন চলেছেন। সুস্থ হয়ে ইতিমধ্যেই বাড়িতে ফিরেছেন ৬ হাজার ১৮৪ জন। করোনার বলি এখনও পর্যন্ত ৮৭২ জন। মৃতদের একদন বিদেশি, দেহ পাঠানো হয়েছে তাঁর দেশে। মহামারী করোনায় সবথেকে খারাপ অবস্থায় মহারাষ্ট্র। সোমবার সেখানে মোট আক্রান্তের সংখ্যা ৮ হাজার ছুঁয়ে ফেলল। গুজরাটে মোট আক্রান্ত ৩ হাজার ৩০১। দিল্লিতে আক্রান্ত ২ হাজার ৯১৮। রাজস্থানে মোট আক্রান্ত ২ হাজার ১৮৫ অন্যদিকে মধ্যপ্রদেশে আক্রান্তের সংখ্যা ২ হাজার ৯৬।

মহামারি করোনাকে রুখতে দেশজুড়ে চলছে দ্বিতীয় পর্যায়ের লকডাউন। এমতা বস্থায়  দেশের করোনা পরিস্থিতি খতিয়ে দেখতে সমস্ত রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে আজ ভিডিও কনফারেন্সে বৈঠক সারবেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। এর আগে করোনার ভয়াবহতা রুখতে এমনই দুই বৈঠক বিভিন্ন রাজ্যের সঙ্গে করেছেন তিনি। প্রথমে করোনাকে রুখতে ২১ দিনের লকডাউন ঘোষণা করেছিলেন প্রধানমন্ত্রী। পরে তা বাড়িতে ৩ মে পর্যন্ত করা হয়। আজকের বৈঠকে লকডাউন বাড়ানোর পর্যালোচনা হবে। এই পরিস্থিতি থেকে কীভাবে বেরনো যায় আর কীভাবেই ফের লকডাউন বলবৎ হতে পারে সেসব নিয়েও আলোচনা হবে বলে মনে করা হচ্ছে। আরও পড়ুন-Donald Trump: আমেরিকার ইতিহাসে তিনিই সবথেকে পরিশ্রমী প্রেসিডেন্ট, মার্কিন মিডিয়াকে কটাক্ষ করে দাবি ডোনাল্ড ট্রাম্পের

আজ সোমবার সব রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে ভিডিও কনফারেন্সে বৈঠক করবেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি (Prime Minister Narendra Modi)। সেখানে ধাপে ধাপে লকডাউন তোলা-সহ নানা বিষয় নিয়ে আলোচনা হবে বলে খবর। তার প্রস্তুতি বৈঠক হিসেবে কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভার সচিব রাজীব গৌবা শনিবার একটি বৈঠক ডাকেন। সেখানে রাজ্যগুলির মুখ্যসচিব অথবা স্বরাষ্ট্রসচিবেরা ছাড়াও উপস্থিত ছিলেন পুলিশ কর্তা, বিভিন্ন জেলা আধিকারিক, কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রসচিব, এবং বিদেশসচিব। সরকারি সূত্রের খবর, আলোচনার মূল বিষয়বস্তু ছিল, ভিনরাজ্যের শ্রমিকদের নিজ নিজ রাজ্যে ফেরানো নিয়ে ভবিষ্যতে কী ভাবে এগোনো হবে। পাশাপাশি কেন্দ্রের পক্ষ থেকে এটাও জানতে চাওয়া হয় যে, সংক্রমণের হার কোথায় কী ভাবে বাড়ছে, ২০ তারিখের পরে কোন রাজ্য কী ভাবে ছাড় দিয়েছে।