Rajasthan Shocker: মেয়ের সঙ্গে কথার কয়েক ঘণ্টার মধ্যে অপহরণ, বাবাকে হাত, পা বাঁধা ছবি পাঠাল দুষ্কৃতীরা
Arrest, Representational Image (Photo Credit: Twitter/ANI)

কোটা, ১৯ মার্চ: কোচিং ক্লাসে গিয়ে অপহৃত ছাত্রী।  মধ্যপ্রদেশের (Madhya Pradesh) শিবপুরীর বাসিন্দা ওই ছাত্রী রাজস্থানের কোটায় যান পড়াশোনা করতে। বিভিন্ন চাকরিবাকরির পরীক্ষা দিতেই রাজস্থানের (Rajasthan) কোটায় (Kota) কোচিং নিচ্ছিলেন ওই ছাত্রী। সেখান থেকে ফেরার পথে আচমকা তাঁকে অপহরণ করা হয়। ওই ছাত্রীকে অপহরণ করে, তাঁর পরিবারের কাছে ছবি পাঠানো হয়। যেখানে হাত, পা বাধা অবস্থায় দেখা যা সংশ্লিষ্ট ছাত্রীকে। শুধু তাই নয়, ৩০ লক্ষ দিলে তবেই ওই পড়ুয়াকে ছাড়া হবে বলে পরিবারকে জানায় অভিযুক্তরা। রাজস্থানের কোটা থেকে এমনই একটি খবর প্রকাশ্যে আসতেই তা নিয়ে জল্পনা শুরু হয়।

ওই ছাত্রীর বাবা জানান, চাকরির পরীক্ষার জন্য রাজস্থানের কোটার বিজ্ঞান নগরে ঘর ভাড়া নিয়ে থাকছিলেন মেয়ে। রবিবার রাতেও মেয়ের সঙ্গে তাঁদের ফোনে কথা হয়। রবিবার রাতের পর সোমবার হঠাৎ করেই ওই ছাত্রীর বাবার মোবাইলে ছবি পৌঁছে যায়। যেখানে হাত, পা বাঁধা অবস্থায় দেখে মেলে ওই ব্যক্তির মেয়ের। মেয়েকে মুক্ত করতে ৩০ লক্ষ লাগবে বলে জানায় অপহরণকারীরা। এমনকী একটি অ্যাকাউন্ট নম্বরও দেওয়া হয়। ওই অ্যাকাউন্ট নম্বরে ৩০ লক্ষ পাঠালে তবেই মেয়েকে ছাড়া হবে বলে তাঁর বাবাকে হুমকি দেয় অপহরণকারীরা।

ঘটনা চাউর হতেই পুলিশ তদন্ত শুরু করেছে। NEET পরীক্ষার তোড়জোড় করা ছাত্রীকে কোথায় তুলে নিয়ে যাওয়া হয়েছে, সে বিষয়ে খোঁজ শুরু হয়েছে বলে জানায় পুলিশ। প্রসঙ্গত NEET পরীক্ষার জন্য গত বছর সেপ্টেম্বরে মধ্যপ্রদেশে নিজের বাড়ি থেকে রাজস্থানের কোটায় গিয়ে বসবাস শুরু করেন ওই ছাত্রী।