Naveen Patnaik: আমাদের আঞ্চলিক দলই একমাত্র রাজ্যের স্বার্থরক্ষা করে, বলছেন ওড়িশার মুখ্যমন্ত্রী
(Photo Credits: ANI)

পুরী: "আমাদের আঞ্চলিক দলই (regional party) একমাত্র রাজ্যের স্বার্থরক্ষা (interests) করে।" সোমবার বিজু জনতা দলের (Biju Janata Dal) ২৫ বছর (silver jubilee) পূর্তি উপলক্ষ্যে একটি অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখতে গিয়ে এই দাবিই করলেন ওড়িশার মুখ্যমন্ত্রী নবীন পট্টনায়েক (Odisha CM Naveen Patnaik)।

দলের জন্মলগ্ন থেকেই ওড়িশার শাসন ক্ষমতায় রয়েছে নবীন পট্টনায়েকের বাবা বিজু পট্টনায়েকের তৈরি করা বিজু জনতা দল। সোমবার ছিল দলের সঙ্গে সঙ্গে ওড়িশা শাসনের ২৫ বছর পূর্তিও। সেই উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখতে গিয়ে বিরোধীদের প্রায় সমস্ত সমালোচনার জবাব যেন দিতে দেখা গেল ওড়িশার মুখ্যমন্ত্রী নবীন পট্টনায়েককে। সেই সঙ্গে দলের সিলভার জুবলি উদযাপনের মধ্যে দিয়ে ২০২৪ সালে হতে চলা রাজ্যের বিধানসভা নির্বাচনের আগে দলের কর্মী-সমর্থকদের উজ্জ্বীবিত করার চেষ্টা করলেন তিনি।

ওড়িশার মন্দির শহর হিসেবে পরিচিত পুরীতে আয়োজিত ওই অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখতে গিয়ে বিজু জনতা দলই একমাত্র আঞ্চলিক দল যারা রাজ্যের স্বার্থরক্ষা করে বলে দলের কর্মী ও সমর্থকদের সামনে দাবি করেন নবীন পট্টনায়েক। বলেন, "একটি জাতীয় দলের উদ্দেশ্য বা লক্ষ্য সবসময় জাতীয় রাজনীতিকে ভিত্তিকে করে গড়ে ওঠে। ওড়িশার যত্ন নেওয়া বা ওড়িশার খেয়াল রাখা কখনই তাদের লক্ষ্য হতে পারে না। একমাত্র একটাই আঞ্চলিক দল, বিজু জনতা দল ওড়িশার উন্নয়নকে সুনিশ্চিত করেছে।"

তিনি আরও বলেন, "আমাদের প্রধান কর্তব্য হল আমাদের রাজ্য ও এখানকার মানুষদের রক্ষা করা। ওড়িশার স্বার্থ, এখানকার উন্নয়ন, ওড়িশার গৌরব, ভাষা ও সংস্কৃতিকে রক্ষা করা। আর তাই ওড়িশার গৌরব বৃদ্ধির জন্য সবসময় কাজ করছে বিজু জনতা দল। দলের প্রতিষ্ঠাতা ও অনুপ্রেরণা বিজু বাবার আদর্শ মেনে তাঁকে চুপচাপ অনুসরণ করাই আমাদের কর্তব্য।"

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, ১৯৯৭ সালের ২৬ ডিসেম্বর নবীন পট্টনায়েকের বাবা ও ওড়িশার প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী বিজু পট্টনায়েকের নামে বিজু জনতা দলের গোড়াপত্তন হয়েছিল। আর ২০০০ সাল থেকে দলের প্রধান হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে ওড়িশার মুখ্যমন্ত্রী পদেও বসেন।