Suspension Of UK Flights Extented: ব্রিটেন থেকে বিমান পরিষেবায় নিষেধাজ্ঞা বাড়ল ৭ জানুয়ারি পর্যন্ত
বিমান (Photo Credits: Pixabay)

নতুন দিল্লি, ৩০ ডিসেম্বর: ব্রিটেন (Britain) থেকে ভারত ফেরা যাত্রীদের মধ্যে ২০ জনের শরীরে নতুন করোনার স্ট্রেন (Covid-19 UK Strain) মিলেছে। তবে শুধু ভার নয়, বিশ্বের অন্য দেশেই এই নতুন স্ট্রেন ছড়িয়ে পড়েছে। আর সেই কারণে ব্রিটেন থেকে বিমান চলাচলে নিষেধাজ্ঞা আরও বাড়াল কেন্দ্রীয় সরকার। আজ কেন্দ্রীয় অসামরিক বিমান পরিবহন মন্ত্রী হরদীপ সিং পুরি (Hardeep Singh Puri) বলেন, ভারত থেকে ব্রিটেন ও ব্রিটেন থেকে ভারতে বিমান পরিষেবা সাময়িক স্থগিতাদেশ বাড়ানোর সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। ২০২১ সালের ৭ জানুয়ারি পর্যন্ত বিমান চলাচল বন্ধ থাকবে। তিনি আরও জানান, ৭ জানুয়ারির পর কঠোরভাবে নিয়ন্ত্রিত পরিষেবা পুনরায় শুরু হবে, যার জন্য বিশদ শীঘ্রই ঘোষণা করা হবে।

ব্রিটেনে করোনা ভাইরাসের নতুন রূপটি ধরা পড়ায় বিশ্বজুড়ে ব্যাপক উদ্বেগ তৈরি হয়েছে। বিশ্বের বেশিরভাগ দেশ ব্রিটেন থেকে বিমান চলাচলে নিষেধাজ্ঞা চাপিয়েছে সংক্রমণ রোধে। গত সপ্তাহে ভারতও ব্রিটেন সমস্ত পরিষেবা ডিসেম্বর মাস অবধি স্থগিত করেছিল। আরও পড়ুন: Covid-19 UK Strain In Kolkata: ব্রিটেন থেকে কলকাতা ফেরা যুবকের শরীরে করোনার নতুন স্ট্রেন

কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রক মঙ্গলবার জানিয়েছে যে সমস্ত আন্তর্জাতিক যাত্রী গত ১৪ দিনের মধ্যে ভারতে এসেছেন - এই বছরের ৯ ডিসেম্বর থেকে ২২ ডিসেম্বর পর্যন্ত। তাঁদের যদি করোনভাইরাস রোগের উপসর্গ থাকে এবং রিপোর্ট পজিটিভ আসে তবে তাঁদের জিনোম সিকোয়েন্সিং করতে হবে। করোনার নতুন প্রজাতির ভাইরাসের প্রথম দেখা মেলে ইংল্যান্ডে। পরীক্ষা করে জানা যায় এই ভাইরাসটি পুরোনো গুলির তুলনায় প্রায় ৭০ গুণ বেশি সংক্রামক। এর পরে পরেই লন্ডন ও দক্ষিণপূর্ব ইঁল্যান্ডে কড়া লকডাউন জারি করেছে বরিস জনসনের সরকার। ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত এই কড়া লকডাউন জারি থাকবে।