Beauty Tips: ৩০ বছরের পরে প্রতিদিন পান করুন এই বিশেষ চা, বাড়বে মুখের উজ্জ্বলতা এবং দূর হবে বয়সের ছাপ
Photo Credit Pixabay

ত্বকে বয়সের ছাপ কেউই পছন্দ করে না। সবাই চায় তাকে যেন সবসময় তরুণ এবং সুন্দর দেখতে লাগে। কিন্তু বয়স বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে মুখের উজ্জ্বলতা হারাতে শুরু করে সকলেই। তাই বয়স বাড়ার সঙ্গে ত্বকের উজ্জ্বলতা ও সৌন্দর্য ধরে রাখতে শুধু বাইরে থেকে সৌন্দর্য পণ্যই ব্যবহার করাই যথেষ্ট নয়। শরীর এবং ত্বকের যত্ন নিতে প্রতিদিন কী খাওয়া হচ্ছে সেদিকেও বিশেষ যত্ন নেওয়া উচিত। সারা জীবন তো নিজের যৌবন ধরে রাখা সম্ভব নয়। তবে দীর্ঘ সময়ের জন্য তরুণ এবং সুন্দর দেখার জন্য ৩০ বছর বয়সের পর থেকে খাদ্যতালিকা উন্নত করা উচিত।

শরীর এবং ত্বকের সৌন্দর্য ধরে রাখতে পুষ্টি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। গ্রিন টি-তে প্রচুর ভিটামিন, অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট এবং আরও অনেক উপাদান রয়েছে যা ত্বকের স্বাস্থ্য ভালো রাখতে সাহায্য করে। গ্রিন টি মুখের ত্বকের জন্য অ্যান্টি-এজিং এজেন্ট হিসেবে কাজ করে যা ত্বক সম্পর্কিত সমস্যা যেমন রিঙ্কেল এবং ফাইন লাইন দূরে রাখে। এটি ত্বকের আর্দ্রতা বজায় রাখতেও সাহায্য করে। এছাড়া এটি পেট সুস্থ রাখার জন্যও উপকারী। পাশাপাশি ব্রণ এবং শুষ্ক ত্বকের মতো ত্বকের সমস্যাও কমাতেও সাহায্য করতে পারে। এবার জেনে নেওয়া যাক গ্রিন টির উপকারিতা সম্পর্কে...

১. গ্রিন টি অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট সমৃদ্ধ। এটি শরীরের ফ্রি র‌্যাডিকেলগুলির সঙ্গে লড়াই করতে, অক্সিডেটিভ স্ট্রেস প্রতিরোধ করতে এবং বার্ধক্যের লক্ষণগুলি কমাতে সহায়তা করে।

২. গ্রিন টি-তে অ্যান্টি-ইনফ্লেমেটরি বৈশিষ্ট্য রয়েছে, যা ত্বকের সমস্যা যেমন একজিমা এবং সোরিয়াসিস দূর করতে সাহায্য করে।

৩. গ্রিন টি শরীর থেকে বিষাক্ত পদার্থ বের করে দেয় এবং ত্বককে ভালো রাখার পাশাপাশি ত্বকের রং বজায় রাখতে সাহায্য করে।

৪. গ্রিন টি ত্বককে UV রশ্মি থেকে সুরক্ষা প্রদান করে। এই চা ত্বকে উপর সুরক্ষার একটি অতিরিক্ত স্তর গঠন করে, এটি ক্ষতিকারক UV রশ্মি থেকে রক্ষা করে।

৫. গ্রিন টি ব্রণ বাড়তে দেয় না। এটি ব্রণ সম্পর্কিত হরমোনগুলিকেও নিয়ন্ত্রণ করে, যা ত্বককে পরিষ্কার রাখে।